1. rahmanazmanur@gmail.com : Azmanur Rahman : Azmanur Rahman
  2. bkhabor25@gmail.com : Editor Section : Editor Section
  3. bkhabor24@gmail.com : Md Abu Naim : Md Abu Naim
  4. jmitsolution24@gmail.com : support :
সোমবার, ২৮ নভেম্বর ২০২২, ০৮:৩৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
আপাতত হচ্ছে না পদ্মা ও মেঘনা বিভাগ, প্রস্তাব স্থগিত ব্যাংকিং খাতের আসল চিত্র জানানোর নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর অভয়নগরে হযরত হুসাইন (রাঃ) মাদ্রাসাও এতিমখানায় বাৎসরিক বদর সন্মেলন অনুষ্ঠিত বগুড়ায় দেশীয় মাছে বিষাক্ত রং মিশিয়ে বিক্রি: ব্যবসায়ীকে জরিমানা টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতার সমাধিতে বিসিএস অডিট এন্ড একাউন্টস এসোসিয়েশনের নির্বাহী পরিষদের নবনির্বাচিত সভাপতির শ্রদ্ধা বাংলাদেশের উন্নয়ন কেউ থামাতে পারবে না: প্রধানমন্ত্রী আর্জেন্টিনাকে বিশ্বকাপে টিকিয়ে রাখলেন মেসি বিএনপি’র আহুত সমাবেশে জনগণের কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করা উচিত : এমপি গোপাল রাজশাহীতে বিএমএসএস এর সম্মেলন অনুষ্ঠিত বালিয়াকান্দি রিপোর্টার্স ক্লাবের দ্বি-বার্ষিক কমিটি গঠন

নাশকতা মামলার আসামী এখন স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা

  • Update Time : শুক্রবার, ৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ৯১ জন পঠিত

ফারহানা আক্তার, জয়পুরহাট : ২০১৩ সালের বিএনপি জামায়াতের জ্বালাও পোড়াও নাশকতা মামলার মুল এজাহার নামীয় আসামী মোঃ রুহুল আমিন বর্তমানে জয়পুরহাটের পাঁচবিবি উপজেলার ৬নং মোহাম্মদপুর ইউনিয়ন আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করছেন।

স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা মোঃ রুহুল আমিন পাঁচবিবি উপজেলার মোহাম্মদপুর ইউপির কামার গ্রামের মোঃ রহিম উদ্দীনের ছেলে।
এদিকে নাশকতা মামলার আসামী কি করে ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পান এই নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন স্থানীয় একাধিক নেতাকর্মী।
২০১৩ সালে জামায়াত-বিএনপির জ্বালাও পোড়াও তান্ডব চালাকালীন সময়ে তৎকালীন পাঁচবিবি থানায় কর্মরত এস আই জিল্লুর রহমান ও এস আই আমিনুর বাদি হয়ে ১৪৮ জনসহ অজ্ঞাত আরো ৭/৮ হাজার জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন বলে নিশ্চিত করেছেন পাঁচবিবি থানার পুলিশ পরিদর্শক (ওসি তদন্ত) মোঃ হাবিব। যার মামলা নং ০৩/০৩-০৩-২০১ইং। সেই মামলার মুল এজাহারে ৪১ নম্বর আসামী তালিকায় আছেন মোঃ রুহুল আমিন।
মোহাম্মদপুর ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ রুহুল আমিন নাশকতা মামলার বিষয়টি স্বীকার করে বলেন, আমি দীর্ঘদিন যাবৎ আওয়ামীলীগের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। ছাত্র জীবন থেকেই আমি রাজনীতি করে আসছি। ২০১৩ সালে বিএনপি জামায়াতের নাশকতার সময় শত্রুতার করে কে বা কাহারা আমার নাম এই মামলায় দিয়েছে। বিষয়টি উপজেলার নেতাকর্মীরাও জানে। বিষয়টি তারা দেখছেন।
মোহাম্মদপুর ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি মোঃ নওয়াব আলী বলেন, নাশকতা মামলার বিষয়টি শুনেছি। সে সময়ে শত্রুতা মূলক তার নামে নাশকতা মামলা দেওয়া হয়েছে। বর্তমানে সে ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্বে আছেন। তবে বিষয়টি নিয়ে উপজেলার নেতৃবৃন্দের সঙ্গে কথাও হয়েছে।
পাঁচবিবি উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি রফিউল ইসলাম বলেন, রুহুল আমিন নাশকতা মামলার আগে থেকে ওই ইউনিয়নে কাউন্সিলের মাধ্যমে সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পান। তাকে উদ্দেশ্য প্রণোদিত ভাবে এই মামলায় ফাঁসানো হয়েছে।
পাঁচবিবি উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক জিহাদ হোসেন মন্ডল বলেন, রাজনীতিতে নিজের বলয় তৈরী করতে গিয়ে কে আওয়ামীলীগ করে আর কে করেনা নেতারা সেই বিষয়টি আর মাথায় রাখেনা। তাছাড়া অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের কমিটিগুলো মুল দলের সাথে আলোচনা না করেই অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের কমিটি তৈরী করেন নেতারা। একারনেই নাশকতা মামলার আসামী এখন ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক হয়েছেন। এঁরা দলের জন্য ক্ষতিকর। বিষয়টি জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের কমিটিকে অবগত করছি।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
© All rights reserved © 2020
Design & Develpment by : JM IT SOLUTION