1. bkhabor24@gmail.com : Molla Mohiuddin : Molla Mohiuddin
  2. jmitsolution24@gmail.com : support :
শনিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২০, ১১:৪২ পূর্বাহ্ন

বিশ্বনবী হযরত মুহাম্মদ (সাঃ) কে নিয়ে ব্যঙ্গচিত্র করার প্রতিবাদে গোপালগঞ্জে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ

  • Update Time : বুধবার, ৪ নভেম্বর, ২০২০
  • ৪১ জন পঠিত

স্টাফ রিপোটার,

ইসলাম বিদ্বেষী রাষ্ট্র ফ্রান্সের (ফরাসি) প্রেসিডেন্ট “ইমানুয়েল ম্যাক্রো” সম্প্রতি বিশ্বনবী হযরত মুহাম্মদ (সাঃ)কে নিয়ে ব্যঙ্গ করার প্রতিবাদে সারা বিশ্বের ন্যায় বাংলাদেশের আলেম ও ওলামা সমাজ এবং ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের অংশগ্রহণে চলমান প্রতিবাদ ও তীব্র সমালোচনা করার ধারাবাহিকতায় গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার কাঠী ইউনিয়নে এক মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার গোপালগঞ্জ-কোটালীপাড়া সড়কের কাঠী বাসস্ট্যান্ডে কাঠী বাজার মাদ্রাসার আয়োজনে এ মানববন্ধন কর্মসূচীতে প্রায় দুই সহস্রাধিক ধর্মপ্রাণ মুসলামান অংশগ্রহণ করেন। শান্তিপূর্ণভাবে ঘণ্টাব্যাপী এ মানববন্ধন কর্মসূচী ও বিক্ষোভ সমাবেশ পালন করা হয়। মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে ফ্রান্সের কুরুচিপূর্ণ প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রো’র বিরুদ্ধে ব্যানার, প্লাকার্ড, ফেস্টুন ও তার কুশপুত্তলিকা হাতে বিভিন্ন ধর্মীয় স্লোগানে অংশগ্রহণকারীদের উজ্জীবিত হতে দেখা যায়।

মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পরিচালনা কমিটির সভাপতি মাওলানা আসাদ মোল্লার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত কর্মসূচিতে বক্তব্য রাখেন কাঠী মাদ্রাসার মুহতামিম মোখলেসুর রহমান, কাঠী বাজার সমিতির সভাপতি ইমদাদুল হক, তেলীগাতী মাদ্রাসার হাফেজ ছোরাব, কাঠী ইউপি চেয়ারম্যান বাচ্চু শেখ, সমাজসেবক গাউস মোল্লা প্রমুখ।

বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা অবিলম্বে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট “ইমানুয়েল ম্যাক্রো”কে সারা বিশ্বের মুসলিম উম্মার নিকট নিঃশর্ত ক্ষমা চাওয়ার আহ্বান জানানো হয়। তা না হলে ফ্রান্সে তৈরি সকল পণ্য বর্জনের ঘোষণা সহ আগামীতে কঠোর কর্মসূচি পালনের ঘোষণা দেন বক্তারা। এরপর ম্যাক্রো’র কুশপুত্তলিকা দাহ শেষে শান্তিপূর্ণভাবে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ সম্পন্ন হওয়ায় সকলে মহান আল্লাহ পাকের দরবারে বিশেষ দোয়া ও মোনাজাত করেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2020
Design & Develpment by : JM IT SOLUTION