1. bkhabor24@gmail.com : Molla Mohiuddin : Molla Mohiuddin
  2. jmitsolution24@gmail.com : support :
শুক্রবার, ২৩ অক্টোবর ২০২০, ০৩:৩৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
গাইবান্ধায় স্বতন্ত্র মাদ্রাসা জাতীয় করণের দাবীতে মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান ঘাঘট নদীর তীব্র ভাঙনে দিশেহারা নদী পাড়ের মানুষ গাইবান্ধার সাঘাটায় নদীভাঙন হতে রক্ষার দাবিতে মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান গাইবান্ধায় ষষ্ঠ শ্রেণীর এক স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে জয়পুরহাটে পাঁচবিবি সীমান্তে বিজিবির হামলায় মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রী আহত ইবতেদায়ী মাদ্রাসা জাতীয়করণের দাবীতে শিক্ষক সমাবেশ ও মানববন্ধন আগৈলঝাড়ায় ১৬০ দুর্গাপূজা মন্ডবে সরকারী ও এমপি’র অনুদান বিতরণ জেলা পরিষদের এক সদস্যের বিরুদ্ধে জমি দখলের অভিযোগে মামলা দায়ের গাবতলীতে শিশু অপহরণকালে জনতার হাতে আটক ৪ মঈনকে কৃষকলীগ কার্য নির্বাহী সদস্য করায় আগৈলঝাড়া আনন্দ র‌্যালী

গফরগাঁও পাইথল ইউনিয়নের একজন সফল চেয়ারম্যানএর গল্প

  • Update Time : সোমবার, ৫ অক্টোবর, ২০২০
  • ৭১০ জন পঠিত

নিজস্ব প্রতিনিধি,

প্রতিটি মানুষের স্বপ্ন থাকে।কিন্তু স্বপ্নের পথে পা বাড়ালেই একের পর এক আসতে থাকে প্রতিবন্ধকতা।যে ব্যক্তি এসব প্রতিবন্ধকতা ডিঙিয়ে এগিয়ে যাবেন হবেন সফল।আজ এমনই একজন সমাজ সেবক নিয়ে কথা বলব।যিনি অনেক বাধা ও প্রতিবন্ধকতা ডিঙিয়ে একজন সফল ব্যক্তি(চেয়ারম্যান) হিসেবে প্রতিষ্ঠিত ময়মনসিংহের গফরগাঁও উপজেলার পাইথল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জনাব আক্তারুজ্জামান ঢালী।সাধারণ মানুষের প্রত্যাশা পূরণে নিরন্তর কাজ করে যাচ্ছেন।তারপরও মানুষের প্রত্যাশা থাকে।তিনি তাঁর পরিশ্রম,সাহস ইচ্ছাশক্তি,একাগ্রতা আর প্রতিভার সমন্বয়ে সাধারণ মানুষের ভাগ্য উন্নয়নের জন্য স্হানীয় সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ড সঠিক ও সুচারুভাবে বাস্তবায়নের জন্য, সর্বোপরি জননেত্রী শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশের যে স্বপ্ন রয়েছে সেই স্বপ্ন বাস্তবায়নের জন্য অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন আক্তারুজ্জামান ঢালী চেয়ারম্যান।সকল কাজে সফলও হয়েছেন।সকলের সহযোহিতা পাচ্ছেন এবং সহযোগিতার ব্যক্ত করে চলেছেন। চেয়ারম্যান হিসেবে সফলতা পাওয়ায় তিনি আজ পাইথল ইউনিয়নে সর্বত্র সম্মানিত হচ্ছেন।তারুণ্যের প্রতীক এ ব্যক্তি তার বয়স ও অভিজ্ঞতা দুইটিকেই হার মানিয়েছেন।তার কর্মকান্ডে মনে হয় তিনি প্রবীন নয়।তিনি অনেক প্রবীণ।
তার অভিজ্ঞতা রয়েছে অনেক।এ সকল সফল মানুষের পেছনে আছে কিছু গল্প,তা অনেকটা রুপকথার মতো।আর সে সব গল্প থেকে মানুষ খুঁজে নেয় স্বপ্ন দেখার সম্বল,এগিয়ে যাওয়ার জন্য নতুন প্রেরণা দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকেই উল্লেখযোগ্য উন্নয়নে অগ্রণী ভূমিকা রেখে সাধারণ মানুষের আস্হা অর্জনে সক্ষম হয়েছেন।

এলাকার হতদরিদ্র মানুষের উন্নয়নে তার নিরন্তর প্রয়াসে সব মহলেই প্রশংসা কুঁড়িয়েছে।রাস্তা ঘাটের উন্নয়ন,শিক্ষা ও স্বাস্হ্য সেবায় বিশেষ অবদান,সামাজিক উন্নয়নসহ বিভিন্ন প্রকল্পের বাস্তবায়নে দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিয়ে এলাকায় নিজের মুখ উজ্জ্বল করেছেন।তার সাথে দলের ভাবমূর্তির উন্নয়ন হয়েছে। অসংখ্যক মসজিদ,মাদ্রাসা,শ্মশান,স্কুল কলেজ ও বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনের অন্যতম পৃষ্ঠপোষক সমাজসেবী আক্তারুজ্জামান ঢালী চেয়ারম্যান।ব্যক্তি জীবনে তিনি অত্যন্ত নম্র, ভদ্র,সদা হাস্যোজ্জ্বল ও সাদা মনের মানুষ।তাঁর মাঝে কোন অহংকার নেই। নিরহংকারী এই মানুষটি দলমত নির্বিশেষে কাজ করে যাচ্ছেন।মহামারী করোনার সময় জীবনের মায়া ত্যাগ করে দিনরাত ছুটে চলেছেন পাইথল ইউনিয়ন বাসীর সেবা দিতে যা অন্যান্য ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান দের জন্য উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত। সর্বোপরি কাজ করে যাচ্ছেন সাধারণ মানুষের জন্য।অনেক ষড়যন্ত্রের পরও তিনি মনোবল হারাননি।এই সফল মানুষটি দলীয় নেতাকর্মী থেকে শুরু করে প্রতিটি মানুষের বিপদ আপদে ছুটে যান। এলাকায় তিনি একজন সাদা মনের উদার মানসিকতার ও দানশীল মানুষ হিসেবে ইতিমধ্যে পরিচিতি লাভ করেছেন।এলাকার সাধারণ মানুষের মতে আমরা নেতা বা চেয়ারম্যান বুঝি না।পাইথল ইউনিয়নে একজন ভালো মানুষ। তিনি একজন কর্মঠ ব্যক্তি।এ ইউনিয়নের কাছে জানা যায় তিনি তিন বার চেয়ারম্যান পদে থেকে আমাদের তথা এলাকার উপকার হয়েছে।আমাদের দুঃখ দুর্দশায় তাঁকে সহজেই পাশে পাওয়া যায়। ইতিমধ্যে তিনি সমাজের সকল মতাদর্শের মানুষের কাছে একজন দক্ষ,পরিশ্রমী ও মেধাবী সমাজ সেবক হিসেবে ব্যাপক পরিচিতি লাভ করেছেন।নির্বাচনকালীন সময়ে সাধারণ জনগণকে দেওয়া প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন করে একজন সফল ও জনপ্রিয় ইউপি চেয়ারম্যান হিসেবে সব শ্রেণীর মানুষের অন্তরে স্হান করে নিয়েছেন।তিনি এ পযর্ন্ত ইউনিয়নের বিভিন্ন রাস্তার উন্নয়নসহ স্কুল,মসজিদ মাদ্রাসা,শ্মশান,ঈদগাঁমাঠ সংস্কার করে গরীব দুঃখী মানুষের মাঝে বয়স্ক ভাতা, বিধবা ভাতা সঠিকভাবে বিতরণ করেছেন এবং বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্প সঠিকভাবে বাস্তবায়ন করে গ্রাম্য শালিসের মাধ্যমে ইউনিয়নের বিভিন্ন সমস্যা সমাধান করে যাচ্ছে।

এ ছাড়া তিনি নির্বাচিত হওয়ার পর নিয়মিত অফিস করছেন এবং স্হানীয় প্রশাসনের সার্বিক তত্বাবদানের প্রতিটি উন্নয়নমূলক কাজ অতি দক্ষতার সাথে সফলভাবে করেছেন যা এখনও চলমান আছে।আগামী দিনে পাইথল ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আক্তারুজ্জামান ঢালী সততা ও কর্মদক্ষতার সাথে ইউনিয়নকে আধুনিক মডেল হিসেবে গড়ে তুলবেন এমনটাই প্রত্যাশা ইউনিয়নবাসীসহ সকলের উল্লেখ্য।গফরগাঁও উপজেলার ১২নং পাইথল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আক্তারুজ্জামান ঢালী ১৯৯৭ সালের ৩০ ডিসেম্বর,ছাতা প্রতীক নিয়ে নূরুল হুদা তালুকদার কে পরাজিত করে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন।২০১৪ সালের ১৪ সেপ্টেম্বর,চশমা প্রতিকে আবুল পাঠান কে পরাজিত করে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হোন। ২০১৬ সালের ৫ জুন,নৌকা প্রতীকে বিনাপ্রতিদন্ধীতায় নির্বাচিত হোন।পাইথল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আক্তারুজ্জামান ঢালী জানান সরকারের দেওয়া সকল কর্মসুচী সততার সাথে সফল করাই আমার মুল লক্ষ।পাইথল ইউনিয়ন পরিষদের সচিব রাইসুল ইসলাম জানান ২০১৮-১৯ অর্থ বছরে এল জি এসপি ৩ এর আওতায় বিবিজি এর বরাদ্দের আলোকে পাইথল ইউনিয়নের বরাদ্দের তালিকা গুলো হলো গয়েশপুর বাজারে সেট ঘরের সামনে পানি নিষ্কাশন ড্রেন নির্মান,জয়ধরখালী দাস বাড়ির সামনে বক্স কালর্ভাট নির্মান,গোয়ালবর কাইয়া বাড়ীর সামনে বক্স কালভার্ট নির্মান,শহীদ নগর পশ্চিম পাড়ায় গভীর নলকূপের সেচ ড্রেন নির্মান,দেওল পাড়া মড়ল বাড়ীর সামনে বক্স কালভার্ট নির্মান,গয়েশপুর বারইহাটি রাস্তায় গফুর মেম্বার এর বাড়ি হতে নাজমুলের বাড়ি পর্যন্ত অসমাপ্ত রাস্তায় ফ্ল্যাট সলিং নির্মান,ডুবাইল ফুতিলের বিলের উপর বক্স কালভার্ট নির্মান,শহীদনগর উচ্চবিদ্যালয়ে আই,পি,এস স্থাপন,দুস্ত বেকারদের দক্ষতা উন্নয়ন উপকরণ সরবারহ,এবং আত্বকর্মসংস্থান এর লক্ষে প্রকল্প গ্রহন করেছেন বলে অফিস সূত্রে জানা গেছে।

 

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2020
Design & Develpment by : JM IT SOLUTION